সোমবার, এপ্রিল ০৯, ২০০৭

পৃথিবী অবাক তাকিয়ে রয়-


ইস্টারের ছুটি চলছে এখন।
মাঝে শনি-রবির উইকেন্ড, তার আগে পিছে শুক্র ও সোমবার জুড়ে দিয়ে টানা চারদিনের 'লং হলিডে''। দেশে এরকম হলে নির্ঘাৎ পত্রিকার শিরোনাম হোত- " চারদিনের ছুটির ফাঁদে বাংলাদেশ।''
গরম চলে গিয়ে হাল্কা শীত পড়া শুরু করেছে, সারাদিনের আবহাওয়া চমৎকার। ঠিক 'এমন বসন্ত দিনে' আরেকটা দারুন খবরের কারণে মনটা বেজায় খুশি হয়ে আছে। সেটা হলো- বাংলাদেশ সাউথ আফ্রিকার বিপক্ষে জিতে গেছে!
কেমন করে কী হলো, সেটা গুছিয়ে ভাবার মত সুস্থির নেই মন। শুধু বুঝতে পারছি আনন্দে টগবগ করে ফুটছি!
আশরাফুল আবারো ৮৭ রানের চমৎকার একটি ইনিংস খেলেছে। সেটার ওপর নির্ভর করেই বাংলাদেশ তুলেছে ২৫১ রান। কিছুদিন আগেই অস্ট্রেলিয়ার ৪৩৪ রান তাড়া করে জিতে যাওয়া দক্ষিণ আফ্রিকা এই স্কোরে ধরাশায়ী হবে- এরকম স্বপ্ন দেখবার মতন দুঃসাহসী এখনো সব বাংলাদেশী হতে পারেন নি।
তবু, শুরু থেকেই বাংলাদেশী বোলাররা দারুন ফর্মে থেকে ঠেসে ধরেছিল আফ্রিকানদের। নিয়মিত বিরতিতেই উইকেট পড়ছিল, সেই সাথে বাড়ছিল আস্কিং রান রেট। এবং প্রায় একই রকম দুলতে দুলতে, সম্ভবত এই প্রথম বারের মত একবারের জন্যেও বাংলাদেশ কোন রকম দুশ্চিন্তায় না পড়ে 'খুব সহজে' জিতে নিল এরকম বড় একটি ম্যাচ।
খেলার স্ক্রীন থেকে চোখ তুলে বাইরে তাকিয়ে দেখি, কেবলই ভোর হচ্ছে তখন। দুখী একটা দেশের মানুষদের আবারো আনন্দে ভেসে যেতে দেবার সুযোগ করে দেবার জন্যে আশরাফুল ও তার সহযোদ্ধাদের প্রতি ভীষন কৃতজ্ঞ বোধ করলাম।
এই বিজয়োৎসব দীর্ঘজীবি হোক।


কোন মন্তব্য নেই: